a
Sorry, no posts matched your criteria.
My Bookmarks
  • No bookmark found
Image Alt
 • চুলের যত্ন  • বর্ষাকালীন রূপচর্চায় সঙ্গী হোক নারিকেল

বর্ষাকালীন রূপচর্চায় সঙ্গী হোক নারিকেল

Bookmark CFL(0)
    • নারিকেল লরিক এসিড ও ক্যাপ্রিক এসিড সমৃদ্ধ একটি প্রাকৃতিক উপাদান যা সহজেই বর্ষাকালের এই স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়ায় ত্বকের ছত্রাকজনিত সংক্রমণ দূর করতে সাহায্য করে।
    • ত্বকের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনতে ও তৈলাক্ততা দূর করতে নারিকেল দুধের জুড়ি নেই।
    • নারিকেল দুধে রয়েছে উচ্চমাত্রায় ভিটামিন-সি যা ত্বকের টানটান ভাব ধরে থাকতে সাহায্য করে।
    • নারিকেল তেল এন্টিমাইক্রোবিয়াল বৈশিষ্ট্যের কারণে আর্দ্র আবহাওয়ায় ত্বকে কোনো ব্যকটেরিয়া সংক্রমণ হলে সেটা দূর করতেও কার্যকর ভূমিকা পালন করে।

    বর্ষাকালে বাতাসের আর্দ্রতার কারণে ত্বকে দেখা দেয় নানা রকম সমস্যা। বিশেষ করে ঘাম এবং ডিহাইড্রেশনের কারণে ত্বকে সহজেই ব্যাকটেরিয়াল ও ছত্রাকজনিত ইনফেকশন দেখা দেয়। ফলে ত্বক এবং চুলের জন্য একটু বাড়তি যত্ন ও পরিচর্যার প্রয়োজন হয়।  নারিকেল লরিক এসিড ও ক্যাপ্রিক এসিড সমৃদ্ধ একটি প্রাকৃতিক উপাদান যা সহজেই বর্ষাকালের এই স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়ায় ত্বকের ছত্রাকজনিত সংক্রমণ দূর করতে সাহায্য করে। এই মৌসুমী আবহাওয়ায় নারিকেল হতে পারে আপনার রূপচর্চার আদর্শ সমাধান।

    উজ্জ্বল ত্বকের জন্য নারিকেল দুধের ফেইস মাস্ক: 

আর্দ্র আবহাওয়ায় ভ্যাপসা গরমে ত্বকের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা নষ্ট হয়ে যায়। তাই এই সময় ত্বকের জন্য চাই একটু বাড়তি যত্ন। ত্বকের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনতে ও তৈলাক্ততা দূর করতে নারিকেল দুধের জুড়ি নেই। এই প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে ঘরোয়া ভাবে তৈরী ফেইস মাস্ক ব্যবহারে সহজেই আপনি পেতে পারেন উজ্জ্বল ত্বক।

উপাদান:

  • ১ টেবিল চামচ টমেটোর রস
  • ১ টেবিল চামচ নারিকেল দুধ

নির্দেশনা: 

  • একটি ছোট বাটিতে টমেটোর রস ও নারিকেল দুধ ভালোভাবে মিশিয়ে নিন।
  • মুখ ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেইস মাস্কটি মুখে, গলায় ও ঘাড়ে ভালোভাবে লাগিয়ে নিন।
  • কিছুক্ষণ আঙুলের সাহায্যে মাসাজ করে মাস্কটি মুখে রেখে দিন যতক্ষণ না শুকিয়ে যায়।
  • ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিন।

নারিকেল দুধে রয়েছে উচ্চমাত্রায় ভিটামিন সি যা ত্বকের ইলাস্টিসিটি ধরে থাকতে সাহায্য করে। এ ছাড়া নারিকেল দুধে রয়েছে কপার যা ত্বকের রিংকেল, দাগ, ছোপ, বয়সের ছাপ ইত্যাদি দূর করে ত্বকে বাড়তি উজ্জ্বলতা এনে দিতে দারুণভাবে সহায়তা করে। টমেটোতে রয়েছে উচ্চমাত্রায় এস্ট্রিঞ্জেন্ট যা ত্বকের কালো দাগ দূর করতে সাহায্য করে।

তাই আর্দ্র আবহাওয়ায় এবং ভ্যাপসা গরমে উজ্জ্বল ত্বকের জন্য সহজেই ঘরে বসে ব্যবহার করুন নারিকেল দুধ ও টমেটোর ফেইস মাস্ক।

 

সুদিং কোকোনাট অয়েল সাইট্রাস সল্ট স্ক্রাব

বর্ষার স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়ায় ত্বকে নানারকম সমস্যা দেখা দেয়। বিশেষ করে বাইরে গেলে আর্দ্রতার কারণে প্রচুর ঘাম হয়। এতে করে ত্বক তার স্বাভাবিক উজ্জ্বলতা হারায়। তাই এ সময় নিয়মিত বডি স্ক্রাবের মাধ্যমে ত্বকের মৃত কোষ এক্সফলিয়েট করে সহজেই ত্বকের উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনা যায়।

তাই ঘরে ফিরেই ঝরঝরে একটা গোসলের জন্য নারিকেল তেল দিয়ে সহজেই বানিয়ে ফেলতে পারেন কোকোনাট অয়েল সাইট্রাস সল্ট স্ক্রাব,  যা আপনার ত্বকে অন্যরকম সতেজতা এনে দেবে।

উপাদান: 

  • ২ কাপ নারিকেল তেল
  • ১ কাপ ইপসম লবণ
  • ৩ ফোঁটা বারগামট এসেনশিয়াল অয়েল
  • ৩ ফোঁটা ইলাং ইলাং এসেনশিয়াল অয়েল
  • ৩ ফোঁটা অরেঞ্জ এসেনশিয়াল অয়েল

নির্দেশনা:

  • নারিকেল তেল হালকা গরম করে নিন।
  • সব উপাদান একসাথে মিশিয়ে একটি কৌটায় সংরক্ষণ করুন।
  • স্ক্রাব করার আগে ভালো ভাবে বডি ওয়াশ দিয়ে হাত-পা ও অনান্য অংশ ধুয়ে নিন।
  • নারিকেল তেলের স্ক্রাবটি মেখে হাত অথবা একটি লুফার সাহায্যে আলতোভাবে ৫-১০ মিনিট মাসাজ করুন।
  • পানি দিয়ে ভালোভাবে ধুয়ে একটি ময়েশ্চারাইজার লোশন ব্যবহার করুন।
  • ৩ মাস পর্যন্ত সংরক্ষণ করতে পারবেন।

নারিকেল তেল আমাদের ত্বকের প্রদাহ কমাতে সাহায্য করে। এন্টিমাইক্রোবিয়াল বৈশিষ্ট্যের কারণে আর্দ্র আবহাওয়ায় ত্বকে কোনো ব্যকটেরিয়া সংক্রমণ হলে সেটা দূর করতেও কার্যকর ভূমিকা পালন করে। বাথসল্ট হিসেবে ইপসম লবন দারুণ কার্যকর। ইপসম লবণ স্কিনে একটা রিফ্রেশ ভাব এনে দেয়, এছাড়া এক্সফলিয়েটর হিসেবেও কাজ করে। ত্বকে সোরনেস থাকলে এই স্ক্রাবটি খুবই উপকারী।

আর্দ্র আবহাওয়ায় ঘরে ফিরে রিফ্রেশিং, সুদিং শাওয়ার এর জন্য কোকোনাট অয়েল সাইট্রাস স্ক্রাব নিয়মিত ব্যবহার করা যেতে পারে।

আর্দ্র আবহাওয়ায় ফ্রিজি চুলের জন্য নারিকেল তেলের হেয়ার মাস্ক: 

আর্দ্র আবহাওয়ায় চুল নিয়ে দারুণ সমস্যার মুখোমুখি হতে হয়। অনেক সময় বৃষ্টির এসিডিক পানি চুলে লাগার কারণে চুলের স্বাভাবিক আর্দ্রতা নষ্ট হয়ে চুল ফ্রিজি হয়ে যায়। তাই এরকম স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়ায় চুলের সঠিক যত্ন নিতে নারিকেল তেলের হেয়ার মাস্ক দারুণ কার্যকর।

উপাদান:

  • পাকা কলা- ১টি
  • দই- ১/২ চা চামচ
  • নারিকেল তেল- ১ চা চামচ

নির্দেশনা: 

  • কলা ভালোভাবে কাটা চামচ দিয়ে ভর্তা করে নিন।
  • এতে দই এবং তেল মিশিয়ে ফেটিয়ে মাস্ক তৈরী করে নিন।
  • চুলে এবং মাথার ত্বকে ভালোভাবে লাগিয়ে ৩০ মিনিট অপেক্ষা করুন।
  • শ্যাম্পু দিয়ে চুল ডিপ ক্লিন করে নিন।

নারিকেল তেলে রয়েছে চুলের পুষ্টির জন্য প্রয়োজনীয় ভিটামিন এবং ফ্যাটি এসিড।.পাকা কলায় প্রচুর পটাসিয়াম, প্রাকৃতিক তেল এবং কার্বোহাইড্রেট  রয়েছে তাই সহজেই চুলের খুশকি এবং ফ্রিজিনেস দূর করতে সাহায্য করে। দই ল্যাক্টিক এসিড সমৃদ্ধ হওয়ায় মাথার ত্বকের মৃত কোষ দূর করে।

এই হেয়ার মাস্কটি ব্যবহারে চুলের আর্দ্র ও রুক্ষভাব সহজেই দূর করা যায়।। নারিকেল তেলের এই হেয়ার মাস্কটি চুলে ময়েশ্চার যুক্ত করে জীবন ফিরিয়ে আনে এবং গোড়া থেকে চুলের পুষ্টি যোগায়।

বর্ষায় চুল এবং ত্বকের লাবণ্য কমে যায়। সেজন্য এ সময় চাই একটু বাড়তি পরিচর্যা, ঘরে থাকা প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে সহজেই যা আপনি করে ফেলতে পারেন।


Reference:

Face Mask:

 

https://food.ndtv.com/beauty/four-2-ingredient-face-masks-for-all-your-summer-skin-problems-1873483

Coconut milk contains copper reference:

 

 

https://food.ndtv.com/beauty/10-amazing-coconut-milk-benefits-for-hair-face-and-skin-1421580#:~:text=Coconut%20milk%20has%20high%20levels,6%20drops%20of%20coconut%20milk.

 

Coconut oil antibacterial reference:

 

Epsom salt being exfoliator and reduce soreness:

https://www.medicalnewstoday.com/articles/321627#benefits-of-epsom-salt-baths

 

Body scrub:

https://veggieconverter.com/coconut-oil-epsom-salt-scrub/

 

https://www.fragrancex.com/blog/coconut-oil-beauty-products/

Yogurt hair mask:

 

 

https://www.netmeds.com/health-library/post/3-diy-hair-masks-to-keep-your-tresses-happy-in-monsoon

POST A COMMENT