a
Sorry, no posts matched your criteria.
My Bookmarks
  • No bookmark found
Image Alt
 • ত্বকের যত্ন  • এই শীতে নিজেকে সুন্দর রাখতে প্রয়োজনীয় যে টিপসগুলো মেনে চলবেন
glowing skin in winter

এই শীতে নিজেকে সুন্দর রাখতে প্রয়োজনীয় যে টিপসগুলো মেনে চলবেন

Bookmark CFL(0)
  • শীতকালে গ্লোয়ি ত্বকের জন্য ময়েশ্চারাইজিং এর বিকল্প নেই।
  • শীতকালে রাতে ঘুমানোর আগে অবশ্যই ত্বক ডিপ ময়েশ্চারাইজ করে নিন।
  • ত্বকের পুষ্টি যোগাতে, ত্বককে রোদ থেকে রক্ষা করতে শীতেও নিয়মিত সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন।

বাতাসে আর্দ্রতা কমে যাওয়ার কারণে মূলত শীতকালে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। আর শুষ্ক ত্বক থেকেই ত্বকের অন্য সমস্যার শুরু হয়। এছাড়া শীতে রুম হিটারে থাকা, বাইরে সূর্যের আলোয় রোদ পোহানোর কারণে, অতিরিক্ত গরম পানিতে গোসল করার কারণেও ত্বকের অবস্থা খুব খারাপ হয়ে যায়। শুষ্কতার কারণে ত্বকে পুষ্টির অভাবে চুলকানি, ফেটে যাওয়া ইত্যাদি দেখা দেয়। এসব থেকে ধীরে ধীরে একনে, একজিমা, ঠোঁট ও পা ফেটে যাওয়া, সোরিয়াসিস জাতীয় রোগও হতে পারে।

শীতের এইসব চর্মরোগ থেকে রক্ষা পেতে তাই আপনার ত্বকের জন্য চাই একটু বাড়তি যত্ন। এ সময় ত্বকের শুষ্কভাব কমাতে প্রতিদিনের নির্দিষ্ট কিছু স্কিনকেয়ার রুটিন মেনে চলতে হবে। এ সময় শরীরে পানির অভাবে হাইড্রেশনের অভাব দেখা দেয়। তাই ত্বক চর্চার পাশাপাশি নিজের শরীরেরও যত্ন নিতে হবে।

এই শীতে উজ্জ্বল এবং গ্লোয়ি ত্বকের জন্য যে টিপস গুলো মেনে চলবেন সেগুলো হল:

১। ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখুন- 

ত্বকের যত্নে ময়েশ্চারাইজিং হলো সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ধাপগুলোর একটি। বিশেষ করে শীতকালে গ্লোয়ি ত্বকের জন্য ময়েশ্চারাইজিং এর বিকল্প নেই। নিয়মিত ময়েশ্চারাইজার ব্যবহারে আপনার ত্বকের পানির পরিমাণ বজায় থাকে ও ত্বকের প্রাকৃতিক তেলের ভারসাম্যও ঠিক থাকে। বিভিন্ন ধরনের প্রাকৃতিক ময়েশ্চারাইজার রয়েছে, তবে এর মধ্যে অন্যতম হলো নারিকেল তেল, ক্যাস্টর অয়েল, অলিভ অয়েল, বাটার মিল্ক ইত্যাদি।

২। নিয়মিত পানি পান করুন- 

শীতে পানির পিপাসা স্বাভাবিকের তুলনায় কম পায়। তাই আপনার শরীরে সহজেই পানি শূন্যতা দেখা দিতে পারে। এদিকে শীতে শরীর শুষ্ক হয়ে যায় বলে পানির অভাব দেখা দেয়। এতে করে ভিতর থেকেই ত্বকে পানির অভাব দেখা দেয়। তাই নিয়মিত পানি পান করুন। নিয়ম মেনে পানি পান করলে শরীরে পানি শূন্যতা দেখা দেয়না এবং ত্বকে ভিতর থেকেই উজ্জ্বলতা ফিরে আসে।

৩। কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন- 

শীতে গোসলের জন্য গরম পানি ব্যবহার করলেও মুখের ত্বকের জন্য গরম পানি খুবই খারাপ। এটি আপনার ত্বককে একদম শুষ্ক করে তোলে। বিশেষ করে সংবেদনশীল ত্বকের উপর এর প্রভাব মারাত্মক। কিন্তু যেহেতু শীতে ঠান্ডা পানি দিয়ে গোসল করা বা হাত মুখ ধোয়া যায় না তাই মুখের ত্বকের জন্য কুসুম গরম পানি ব্যবহার করুন। এতে করে মুখ থেকে প্রাকৃতিক যে তেল আছে তা বের হয়ে নষ্ট হবে না।

৪। রাতে ত্বকের যত্ন করুন- 

সুন্দর ত্বকের জন্য নাইট কেয়ার রুটিনের বিকল্প নেই। সাধারণত রাতে প্রায় ৭/৮ ঘন্টা ঘুমানো হয়। এই পুরো সময়ে কোনো ধরনের স্কিন কেয়ার করা হয়না। তাই রাতে ঘুমানোর আগে অবশ্যই ত্বক ডিপ ময়েশ্চারাইজ করে নিন। এতে করে ঘুম থেকে ওঠার পর ত্বক একদম নরম ও আর্দ্র থাকবে।

৫। ত্বকের জন্য উপযোগী সাবান বা ফেসওয়াশ বেছে নিন- 

অনেক সাবান ত্বকের পিএইচের ভারসাম্য নষ্ট করে ত্বকের ক্ষতি করতে পারে। ফলে শীতকালে ত্বক আরো বেশি শুষ্ক হয়ে ফেটে যায়। কাজেই ত্বকের জন্য সাবান ব্যবহার করলে ইমোলিয়েন্টযুক্ত ও প্রাকৃতিক তেল সমৃদ্ধ সাবান ব্যবহার করুন।

৬। শীতকালে আকাশে রোদ নেই বলে ভাববেন না যে সূর্যও নেই- 

শীতকালে প্রায়ই দেখা যায় আকাশে রোদ নেই বা মেঘলা দিন। এমন সময়ে ভাববেন না যে সানস্ক্রিন আর ব্যবহার করতে হবে না। শীতে আকাশে রোদ না থাকলে সূর্যটা ঠিকই থাকে। তাই ত্বকের পুষ্টি যোগাতে, ত্বককে রোদ থেকে রক্ষা করতে শীতেও নিয়মিত সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন। যেসব সানস্ক্রিনে এস পি এফ ১৫ এর বেশি আছে সাধারণত এগুলো সূর্যের ক্ষতিকারক ইউভিবি ও ইউভিএ রশ্মি থেকে ত্বককে রক্ষা করে ও ত্বকের গ্লোয়ি ভাব বজায় থাকে।

৭। শীতে পায়ের বাড়তি যত্ন নিন- 

পায়ের গোড়ালি ও পাতায় ফাটল দেখা দিলে শুধুমাত্র পেডিকিউর করাই সমাধান নয়। পেডিকিউরের পাশাপাশি প্রতিদিন পায়ের যত্ন নিতে হবে। ঘুমানোর আগে পা গরম পানিতে কিছু সময় ডুবিয়ে রাখুন। পানির ভিতর অয়েল ফ্রি ক্লিঞ্জিং লোশন বা লবণ যোগ করতে পারেন। লুফার সাহায্যে স্ক্রাব করে পায়ের মৃত কোষগুলি বের করে ফেলুন ও ভারি প্রকৃতির ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। সম্ভব হলে মোজা পরে ঘুমাতে যান। এতে করে পায়ের ফাটল দূর হয়ে যাবে, শীতেও আপনার পা মসৃণ থাকবে।

৮। নিয়মিত স্ক্রাব করুন- 

ত্বকের মৃত কোষগুলি তুলে ফেলতে নিয়মিত স্ক্রাব করুন। ত্বক নিয়মিত স্ক্রাবের ফলে মসৃণতা বৃদ্ধি পায় তাই শীতকালেও ত্ত্বকে  আর্দ্রতা বজায় থাকে। ত্বকে এক্সফলিয়েট করা না হলে মৃত কোষগুলি ত্বকে ময়েশ্চার সিল করতে বাধা দেয়। তাই শীতকালে মৃদু এক্সফলিয়েশন করলে ত্বকের আর্দ্রভাব বজায় থাকে যা ত্বকের গ্লো বাড়াতে সাহায্য করে।

৯। ঠোঁটের যত্ন নিন- 

শীতকাল বারবার ঠোঁট শুকিয়ে গিয়ে ফেটে যাওয়া একটা কমন সমস্যা। এই সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে লিপ বাম ব্যবহার করুন। এছাড়া শীতকালে ম্যাট লিস্পস্টিক ব্যবহার করা একদমই উচিত না। ঠোঁট বারবার জিহবা দিয়ে ভেজালে আরো বেশি শুকিয়ে ফেটে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে তাই এই অভ্যাস ত্যাগ করুন।

শীতকালে ত্বকের উজ্জ্বলতা ধরে রাখতে কি করা উচিত, কীভাবে শীতে ত্বকের যত্ন নিতে হবে, ত্বকের যত্নে কোন প্রাকৃতিক উপাদানগুলি সবচেয়ে কার্যকর, এই নিয়ে প্রশ্নের শেষ নেই। সেসব কিছু প্রশ্নের উত্তর নিয়ে এই অংশটি তৈরি করা হয়েছে।

১। শীতে ত্বকে কোন ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করবো? 

অনেকেই বাজারের কেমিক্যাল জাতীয় পণ্য ব্যবহার না করে প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করতে পছন্দ করেন। সে ক্ষেত্রে নারিকেল তেল বা অলিভ অয়েল খুব কার্যকর। শীতকালে নারিকেল তেল জমে যায়, তাই ময়েশ্চারাইজার হিসেবে ব্যবহার করার আগে এটা একটু গরম করে ব্যবহার করতে পারেন। বিশেষ করে গোসলের পর নারিকেল তেল ময়েশ্চারাইজার হিসেবে ব্যবহার করলে ত্বকে ময়েশ্চার সিল করতে সাহায্য করে।

২। শীতে সারাদিনে কতো বার মুখ ধোয়া যাবে?  

শীতে বারবার মুখ ধুলে ত্বক আরো বেশি শুষ্ক হয়ে যায়। রাতে শোবার আগে মুখ ভালো ক্লিনজার দিয়ে ধুয়ে নিলে সকালে শুধুমাত্র পানির ঝাপটা দিলেই চলবে। তারপরেও সকালে মুখে ক্লিনজার দিতে চাইলে কটন প্যাডে মাইসেলার ওয়াটার দিয়ে মুখে লাগিয়ে নিতে পারেন। মুখ ধোয়ার সময় সব সময়ই কুসুম গরম পানি ব্যবহার করতে হবে, কখনোই গরম পানি ব্যবহার করা যাবে না।

৩। শীতে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায় কেন? 

শীতে বাতাসে আর্দ্রতা কমে যায়। তাই ত্বকের ভিতরের পানিও শুকিয়ে যায়। ফলে ত্বক হয়ে ওঠে শুষ্ক ও খসখসে।  এমনকি ত্বক শুষ্ক হয়ে ফেটে যায়। শীতে স্বাভাবিক সময়ের চাইতে ত্বকের ময়েশ্চার ধরে রাখার ক্ষমতা প্রায় ২৫ ভাগ কমে যায়। তাই এ সময় বারবার ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করে ত্বকের যত্ন নিন।

শীতে শুষ্ক ত্বক একদমই স্বাভাবিক ঘটনা। তবে ঠিক মতো ত্বকের যত্ন নিলে এই শীতেও আপনার ত্বক থাকবে কোমল, মসৃণ এবং গ্লোয়ি।

উল্লেখ্য যে, উপরের টিপস এবং উত্তরগুলি সাধারণ জ্ঞান ও সাধারনভাবে আহরিত তথ্য যা কোনওভাবেই স্কিনকেয়ার বিশেষজ্ঞের বা চিকিৎসকের পরামর্শের বিকল্প হিসাবে বিবেচনা করা উচিত নয়। তাই বিশেষজ্ঞের পরামর্শ বা চিকিৎসার জন্য দয়া করে আপনার ডাক্তার বা চর্ম রোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।

Reference:

https://www.ndtv.com/food/winter-skin-care-tips-easy-tips-to-keep-your-skin-glowing-this-winter-1980203

https://www.vogue.in/content/10-winter-skin-care-tips-for-a-head-to-toe-glow-according-to-experts

https://advanceddermatologymemphis.com/2017/12/15/nine-common-winter-skin-conditions-and-how-to-ease-them/

https://healthengine.com.au/info/looking-after-your-skin-in-winter#:~:text=Introduction%20to%20skin%20in%20winter,-During%20the%20winter&text=Severely%20dry%20skin%20can%20crack,it%20is%20in%20the%20summertime.

https://www.timesnownews.com/health/article/winter-skincare-3-oils-that-you-can-use-as-moisturizers-to-take-extra-care-of-your-skin/521563

https://www.health.com/beauty/5-face-washing-mistakes-to-stop-making-this-winter

https://www.health.harvard.edu/womens-health/what-to-do-about-dry-skin-in-winter

 

POST A COMMENT